ঢাকা, মঙ্গলবার, ২৮ সেপ্টেম্বর ২০২১, ১৩ মাঘ ১৪২৮, ২০ সফর ১৪৪৩

পাহাড়ের  রহস্যে ঘেরা কৌতূহলী  ভ্রমণ, বান্দরবনের  মুনলাই



পাহাড়ের  রহস্যে ঘেরা কৌতূহলী  ভ্রমণ, বান্দরবনের  মুনলাই


অসীম বেনেডিক্ট পামার: ৫৪ বাওম পরিবারের একটি শান্তময় পাড়া, বান্দরবান শহর থেকে দুই ঘণ্টার কোলাহলমুক্ত মায়াময় যাত্রা আপনাকে আপনার কাঙ্খিত রহস্যে ঘেরা মুনলাই নিয়ে যাবে।   

রহস্যে আবৃত পাহাড় এবং সাঙ্গু নদীর মধ্যখানে দর্শনীয় স্থাপনা, পাহাড়িও ঘরোয়া পরিবেশ এবং রন্ধনসম্পর্কীয় অভিযান, রোমাঞ্চকর ট্রেক, কায়াকিং, দেশের দীর্ঘতম জিপ লাইন এবং অন্যান্য বহু অ্যাডভেঞ্চারে পরিপূর্ণ বাওম সম্প্রদায়ের চমৎকার জীবনধারার অনুভব করার প্রয়াস মিলবে যখন আপনি নিজেকে মুনলাইয়ে নিয়ে যাবেন। 

প্যাডেল চালিত বাইকগুলি আপনি মুনলাই পাড়ায় ভাড়া নিতে পারবেন,  ট্রেইলগুলি বিভিন্ন কঠিন স্তরের চমৎকার পাহাড় এবং নীচের পাহাড়ের অভিজ্ঞতা পরিপূর্ণ এবং আপনি চাইলে গাইডের সহযোগিতা সার্বক্ষণিক পাবেন।

মুনলাই পাড়ায় আসলে প্রত্যেক ভ্রমণকারীর কমিউনিটি ট্যুরিজম মনে করবেন। থাকার জায়গাগুলো আদিবাসী ঐতিহ্যে আবৃত, স্বাচ্ছন্দ্য ও স্বাস্থ্যসম্মত।  হাউসকিপিং, শিষ্টাচার, অতিথিপরায়ণ  এবং আতিথেয়তা পরিষেবা আপনাকে মুগ্ধ করবে।

ভজন বিলাসীদের জন্য সুখবর, খাবার মুনলাই পাড়ার একটি গুরুত্বপূর্ণ বিষয়। স্বাগতম  পানীয়  থেকে শুরু করে প্রধান খাবার পর্যন্ত প্রতিটি খাবারই বাওম সংস্কৃতি, অনন্য উপাদান এবং এর জাতিগত স্বাদের কথা আপনাকে মনে করিয়ে দিবে। অতিথিদের অবিস্মরণীয় গ্যাস্ট্রোনমিক ভ্রমণে নিয়ে যেতে পার্বত্য অঞ্চল এবং মূল ভূখণ্ডের খাবারের সাথে ঐতিয্যবাহী  বাউম খাবার হরহামেশাই আপনি পেয়ে যাবেন।

মুনলাইয়ের আশেপাশে বসবাসকারী কিছু উত্তেজনাপূর্ণ পাখি আপনি দেখতে পাবেন। রাতের সময়, পরিষ্কার আকাশ এবং তারার একটি সমন্বয় উত্তেজনাপূর্ণ দৃশ্য আপনি দেখতে পাবেন।

বাউম সম্প্রদায়, তার সংস্কৃতি ও .তিহ্য পুনরুদ্ধার, বিকাশ ও টিকিয়ে রাখার মূল দর্শনে বিশ্বাসী দেশের প্রথম কমিউনিটি পর্যটন উদ্যোগ এই মুনলাইয়ে।


   আরও সংবাদ